মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৬:০১ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
নাইক্ষ্যংছড়িতে বিষ পানে এক গৃহবধূর আত্মহত্যা নিজ ট্রাক্টরেচাপা পড়ে মৃত্যু লামা মন্দিরে হামলার ঘটনার মিথ্যাচারের প্রতিবাদে পৌর মেয়রের সংবাদ সম্মেলন বান্দরবানে রথ বিসর্জনের মধ্য দিয়ে প্রবারণা পূণির্মা সম্পন্ন নাইক্ষ্যংছড়ির দুই চেয়ারম্যান পদে-৫ ও মেম্বার পদে-৭১জনের মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা নাইক্ষ্যংছড়িতে উদযাপিত হচ্ছে প্রবারণা পূর্ণিমা আজ প্রবারণা পূর্ণিমা; মাহা ওয়াহগ্যোয়াই পোয়েঃ নাইক্ষ্যংছড়ি সপ্রাবি অবসরপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকদের বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত নাইক্ষ্যংছড়িতে সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সমাবেশ ও শান্তি শোভাযাত্রা  আলীকদমে টমটমের ধাক্কায় বৃদ্ধের মৃত্যু
নাংকু খুমির ৮ কেজি ওজেনর টিউমার সফলভাবে অপারেশন করলো ডাঃ সাবরিনা

নাংকু খুমির ৮ কেজি ওজেনর টিউমার সফলভাবে অপারেশন করলো ডাঃ সাবরিনা

স্টাফ রিপোর্টারঃ

মানুষের সেবা দেওয়া হল এক মহান পেশা । আর সেই মহান ব্রতকে সার্থক করেছেন পার্বত্য বান্দরবান জেলায় কর্মরত ইমানুয়েল মেডিকেল সেন্টারের কর্মরত ডাক্তার সাবরিনা বরকত । যিনি দীর্ঘদিন ধরে গরিব দুঃখী অসহায় মানুষের পাশে তার সেবা প্রদান করে আসছেন। কারণ তার একমাত্র লক্ষ্য মানুষের পাশে থেকে তাদের কষ্ট লাঘব করা। যার বাস্তব প্রমাণ তিনি বর্তমানে দিয়ে গিয়েছেন। বান্দরবান জেলার থানচি উপজেলার দুর্গম রেমাক্রি ইউনিয়নের গরীব দুস্থ অসহায় একটি মেয়ে নাংকু খুমি (১৯) ।

দুর্গম এলাকা ও পড়াশোনা না থাকায় অসচ্ছল একটি পরিবার বলা চলে । দীর্ঘ অনেক মাস ধরে অসহ্য পেট ব্যথা ও যন্ত্রণা দিন কাটাচ্ছিল সে। যতই দিন যাচ্ছিল তার পেট ব্যথা বেড়ে যাচ্ছিল এবং সাথে তার পেট অস্বাভাবিকভাবে বড় হয়ে যাচ্ছিল। পরিবারের সদস্যরা ধারণা করে নিয়েছে সে হইত সন্তান সম্ভাবনা ।

বান্দরবানে এসে ডাক্তারের শরণাপন্ন হলে ডাক্তার তাকে আল্ট্রা করে পেটের মধ্যে বিশাল আকৃতির এক টিউমার দেখতে পায় তা দিন দিন বড় হতে লাগল ।

ডাক্তার তাদেরকে জানান, যার অপারেশন বান্দরবানের সম্ভব নয়, চট্টগ্রামের যেতে হবে। তারা চট্টগ্রামে খোঁজখবর নিয়ে দেখল অনেক টাকার প্রয়োজন এই অপারেশন করতে। যার ভার বহন করা গরিব নাংখু খুমির পরিবারের পক্ষে সম্ভব নয় । নিরুপায় হয়ে তারা আবার সে রেমাক্রীতে চলে যাচ্ছিল ।

পরবর্তীতে ইমানুয়েল কতৃপক্ষের বিভিন্ন লোকের মাধ্যমে এই খবর জানতে পারেন বান্দরবানের গাইনী বিশেষজ্ঞ ডাক্তার সাবরিনা বরকত ।

তখন তিনি সিদ্ধান্ত নিলেন অপারেশন করবেন। একজন গরীব অসুস্থ মানুষ চিকিৎসার অভাবে এত বড় একটা রোগ নিয়ে মারা যাবে সেটা তিনি মেনে নিতে পারছিলেন না। তাই জরুরি ১ বৈঠকের মাধ্যমে তিনি সিদ্ধান্ত নেন বিনামূল্যে তার অপারেশন করবেন। বাকিটা সৃষ্টি কর্তার হাতে । যেই কথা সেই কাজ ২১ জুন সফলভাবে তিনি এই ৮ কেজি ওজনের টিউমার অপারেশন করে সফল হয়েছেন । তিনি আল্লাহতালার কাছে দুই হাত তুলে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন যে একটি দুস্থ মানুষের প্রাণ বাঁচাতে তার পাশে থাকতে পেরেছেন। এইভাবে নীরবে-নিভৃতে তিনি বান্দরবানের মত পার্বত্য এলাকায় মানুষের পাশে থেকে সেবা প্রদান করে যাচ্ছে যা সত্যিই প্রশংসনীয়।

সাংবাদিকরা পরবর্তীতে এ বিষয়ে নাংখু খুমির সাথে কথা বললে তিনি জানান, আমি অনেক কৃতজ্ঞ ডাক্তার সাবরিনা বরকত ম্যাডামের কাছে এবং সাথে সম্পূর্ণ ডাক্তার টিম ও ইমানুয়েল কর্তৃপক্ষের কাছে। যারা বিনামূল্যে অপারেশন করে এত বড় একটা বিপদ থেকে আমাকে নতুন করে প্রাণ দিয়েছে।

এই বিষয়ে ইমানুয়েল কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বললে তারা জানান,  জটিল সমস্যা সমাধানের জন্য তারা তাৎক্ষণিক মেডিকেল টিম সহ সর্বাধুনিক স্বাস্থ্য সেবা চালু রেখেছে। যা বান্দরবানবাসীর জন্য অত্যন্ত খুশির একটা বিষয়। তাই ডাক্তার সাবরিনার মত সবাই যাতে এরকম আত্মমানবতার সেবায় এগিয়ে আসে এই কামনা করেন ইমানুয়েল কর্তৃপক্ষ সহ সংশ্লিষ্ট সকল ডাক্তারগন।

ভালো লাগলে সংবাদটি শেয়ার করুন....

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Bandarban Pratidin.com
Design & Developed BY CHT Technology