সোমবার, ৩০ মার্চ ২০২০, ০৬:৫৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বাইশারীতে হোম কোয়ারেন্টেইনে থাকা পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত বাইশারীতে খেটে খাওয়া মানুষের ঘরে খাদ্যশস্য পৌছে দিলেন পার্বত্য মন্ত্রী ৫শ দিনমজুর ও শ্রমজীবীর পাশে রুমা ইউএনও  রোয়াংছড়িতে হতদরিদ্রদের মাঝে ১০ টাকা চাল বিতরণ নাইক্ষ্যংছড়িতে করোনা প্রতিরোধে বিজিবির সতর্কতামূলক প্রচার অব্যাহত রুমায় করোনাভাইরাস ঠেকাতে মাঠে নেমেছে: পাইন্দু চেয়ারম্যান ১৫ পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ আলীকদম সেনা জোনের  প্রবীণ সাংবাদিক “চবাথুই মার্মা” মৃত্যুতে নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবের শোক প্রকাশ নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে নজরদারি ও টহল জোরদার, বিদেশ ফেরত ৮ প্রবাসীকে হোম কোয়ারেন্টাইনে করোনা প্রতিরোধে আলীকদম সেনাজোন ও উপজেলা প্রশাসনের সচেতনতামূলক প্রচারনা
১২ ঘন্টার মধ্যে চথোই মংকে ছেড়ে না দিলে, কাউকে ছাড় দেয়া হবে না

১২ ঘন্টার মধ্যে চথোই মংকে ছেড়ে না দিলে, কাউকে ছাড় দেয়া হবে না

বান্দরবান প্র‌তি‌নি‌ধি:

বান্দরবানের সাবেক পৌর কাউন্সিলর ও বান্দরবান পে‌ৗর আওয়ামী লী‌গের সহ-সভাপ‌তি চথোয়াই মং মারমা (৫০)কে অপহরণ করেছে অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা।

আজ ২২ মে বুধবার রাত ৯ টার দিকে সদর উপজেলার ২নং কোহালং ইউ‌নিয়‌নের ৬ নং উজিমুখ পাড়া থেকে নিজ  খামার বাড়ি থেকে অস্ত্রধারি সস্ত্রাসীরা  অপহরণ করা নিয়ে যায়। এ অপহরণের ঘটনায় সঙ্গে সঙ্গে রাত ১০ টায় বান্দরবান শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা করেছেন বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা।

বিক্ষোভ মিছিল ও পথসভা নেতৃত্ব দেন বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পার্বত্য জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্য শৈহ্লা মারমা।

বান্দরবান পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অমল কান্তি দাশ বলেন, পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও  পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর চথোয়াই মং মারমা কে  অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীরা অপহরণ করে নিয়ে গেছে খবর পেয়ে আমরা বান্দরবান শহরের মুক্তমঞ্চে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছি।  সন্ত্রাসীরা আমাদের নেতা কে ১২ ঘন্টার ভিতরে যদি ফেরত না দেয় তাহলে আমরা কঠোর কর্মসূচিতে যাব।

বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম জাহাঙ্গীর বলেন, সম্প্রীতি বান্দরবান সম্প্রীতি অতুথ থাকুক। আমরা অস্ত্র রাজনীতি করি না। যদি আমার ভাই চথোয়াই মং ফিরে না আসে তাহলে এর মাসুল গুনতে হবে। উপজেলার রাজবিলাতে গত ১৫ দিন ধরে একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী একের পর এক যে তান্ডব লীলা চালাচ্ছে আমরা জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে ও আমি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে উদ্বেগ উৎকণ্ঠা প্রকাশ করছি আমি ধিক্কার জানাচ্ছি এই সন্ত্রাসীদের ও যতক্ষণ পর্যন্ত আমাদের আইন শৃঙ্খলা বাহিনী এই সন্ত্রাসীদের নির্মূল করতে না পারবে রাজপথে আছি রাজপথে থাকবো।

তিনি আরও বলেন, এই সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে আমরা যে কোন কিছুর বিনিময়ে প্রতিহত করবো। যারা সন্ত্রাসীদের লালন পালন কর্তা তাদের উদ্দেশ্যে বলবো বিগত দিনে মংপু মার্মাকে হত্যা করা হয়েছে। গত ৪-৫ দিন আগে আমার কর্মিকে হত্যা করা হয়েছে সর্বশেষ আজকে অপহরণ করা হলো পৌর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতিকে এপরিস্থিতিতে আমরা বসে থাকতে পারি না। প্রয়োজনে আমরা নেতা-কর্মী-সমর্থক নিয়ে গ্রাামগঞ্জে প্রতিরোধের ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

বান্দরবান আওয়ামী লীগের সভাপতি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা বলেন, আমরা সংঘাতের রাজনীতি করি না। আমরা শুনেছি আওয়ামী লীগ নেতাদের নাকি লিস্ট করা হয়েছে। যদি এইভাবে লিস্ট এর আওতায় চথোয়াই মংকে অপহরণ করা হয় তাহলে পরিস্থিতি কোথায় গিয়ে দারাবে কেউ বলতে পারবে না।

নেতা কর্মীদের শান্ত থাকার জন্য আহবান জানান। যদি ১২ ঘন্টার মধ্যে ছেড়ে দেয়া না হয় তাহলে আগামী বৃহস্পতিবার  সকাল ১১ টায় সাতটি উপজেলা থেকে নেতা কর্মীদের নিয়ে রাজ পথে নামা হবে।

বান্দরবান পুলিশ সুপার জাকির হোসেন মজুমদার মুঠো ফোনে বলেন, বান্দরবান সদর থানা পুলিশের একটি টিম এবং  সেনাবাহিনী যৌথ অভিযানে উদ্ধার অব্যাহত রয়েছে।  এলাকায় অভিযানে নেমেছেন অভিযানের পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

ভালো লাগলে সংবাদটি শেয়ার করুন....

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 Bandarban Pratidin.com
Design & Developed BY CHT Technology
error: Content is protected !!